Bangladesh Army University of Engineering & Technology – ( BAUET)

Bangladesh Army University of Engineering & Technology – ( BAUET) বাংলাদেশ সেনাবাহিনী ২০১৪ সালে দেশে তিনটি প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠা করেছে। এই তিনটি বিশ্ববিদ্যালয়ের একটি কাদিরবাদ সেনানিবাসে অবস্থিত এবং এর নামকরণ করা হয়েছে ‘বাংলাদেশ সেনাবাহিনী প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, কাদিরবাদ। বাংলাদেশ সরকারের বেসরকারী বিশ্ববিদ্যালয় আইন ২০১০ অনুযায়ী বিশ্ববিদ্যালয়টি প্রতিষ্ঠিত হয়েছে।

সেনা সদর দফতরের অ্যাডজুট্যান্ট জেনারেল শাখার সেনা কল্যাণ অধিদপ্তরকে এই তিনটি বিশ্ববিদ্যালয় নিয়ন্ত্রণের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। এটি বাংলাদেশের সম্ভাবনাময় তরুণ প্রজন্মকে উচ্চতর প্রযুক্তিগত শিক্ষা দেওয়ার জন্য একটি স্বাধীন বেসরকারী বিশ্ববিদ্যালয়। বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রথম সেটআপের কাজ ইঞ্জিনিয়ার সেন্টার অ্যান্ড স্কুল অফ মিলিটারি ইঞ্জিনিয়ারিং (ইসিএসএমই) প্রথম সেমিস্টারের ক্লাস শুরু করার জন্য করেছিল। বর্তমানে আমরা জানুয়ারী ২০২১ সাল থেকে আমাদের প্রশাসনিক ও একাডেমিক কার্যক্রমের জন্য কাদিরবাদ ক্যান্টনমেন্টের উত্তর পশ্চিম পাশের পাশাপাশি নিজস্ব জমিতে স্থায়ী ক্যাম্পাস ব্যবহার করছি। ক্যান্টনমেন্ট কর্তৃপক্ষ সমর্থন অব্যাহত রাখতে এবং আমাদের নিরাপত্তা, সুরক্ষা এবং জন্মগত শিক্ষার অনুভূতি সরবরাহ করতে আমরা বদ্ধপরিকর।

এই বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার পর থেকে পরিবেশ সুন্দর করতে এরিয়া সদর দফতর বগুড়া এবং ইসিএসএমই বাউইটি প্রশাসনকে সহায়তা করছে। Bangladesh Army University of Engineering & Technology – ( BAUET) ১৫ ই জানুয়ারী ২০১৫ এ যাত্রা শুরু করেছিল। এটি গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দূরদর্শী নেতৃত্বের ফলশ্রুতিতে পরিচালিত প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়। এটি স্থাপনের পরিকল্পনা করেছিলেন সেনা, তদনুসারে, আইসিটির মাননীয় প্রতিমন্ত্রী, জনাব জুনায়েদ আহমেদ পলক, এমপি। ১৫ ফেব্রুয়ারী ২০১৫ এ বিশ্ববিদ্যালয়ের ফাউন্ডেশন ফলক উন্মোচন করা হয়েছিল। BAUET নাটোরের কাদিরাবাদ সেনানিবাসে অবস্থিত। রাজশাহী, পাবনা, বগুড়া ও কুষ্টিয়া সংলগ্ন প্রধান জেলা সদরের একটি গুরুত্বপূর্ণ যোগাযোগের কেন্দ্র হ’ল জায়গাটি। কাদীরাবাদ ক্যান্টনমেন্ট যা দয়ারামপুরে অবস্থিত এটি নাটোরের অন্যতম বিখ্যাত স্থান।

বিশেষত, এই জায়গাটি বিএইউইটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের জন্য বিখ্যাত। এটি একটি শান্ত এবং নির্মল পরিবেশ যা খুব ভালো একাডেমিক পরিবেশ প্রদান করে। ক্যান্টনমেন্ট থেকে প্রচুর অবকাঠামোগত সহায়তার ফলে প্রধান ক্যাম্পাসটি কাদীরাবাদ ক্যান্টনমেন্টে অবস্থিত। এটি অত্যন্ত গর্বের বিষয় যে অল্প সময়ের মধ্যেই বিশ্ববিদ্যালয়ের বর্তমান স্থানে নিজস্ব স্থায়ী ক্যাম্পাস রয়েছে। অধিকন্তু, বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে ওয়াই-ফাই জোন সহ বিস্তৃত ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেট সুবিধা প্রতিষ্ঠা করেছে। ল্যাবরেটরিগুলি আধুনিক যন্ত্রপাতি এবং সৃজনশীল শ্রেণিকক্ষ দ্বারা সজ্জিত।

BAUET এর সমস্ত একাডেমিক প্রোগ্রাম, কোর্স এবং সিলেবাস ইউজিসি দ্বারা অনুমোদিত হয়। বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃক অনুমোদিত তফসিল অনুসারে সকল একাডেমিক প্রোগ্রাম এবং পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। পরীক্ষার নিয়ন্ত্রকের তত্ত্বাবধানে বিভিন্ন পরীক্ষার মাধ্যমে পরীক্ষার কাগজপত্র যাচাই-বাছাই করা হয়। ফলাফল অনুমোদনের পরে যোগ্য শিক্ষার্থীদের মধ্যে সনদপত্র প্রদান করা হবে। BAUET এর ভিশন হলো এটিকে শ্রেষ্ঠত্বের জ্ঞানের একটি প্ল্যাটফর্ম হিসাবে পরিণত করা এবং এটি একটি আন্তর্জাতিক খ্যাতিযুক্ত বিজ্ঞান, প্রকৌশল ও অসাধারণ বিশ্ববিদ্যালয় হিসাবে স্বীকৃত করানো। বিশ্ববিদ্যালয়ের মিশন প্রকৌশল, বিজ্ঞান ও সাধারণ শিক্ষার আধুনিক শিক্ষাব্যবস্থার মাধ্যমে গবেষণা, প্রশিক্ষণ ও মানবসম্পদ বিকাশের মাধ্যমে জ্ঞান বাস্তবায়নের ক্ষেত্রে ‘আর্টের রাজ্য’ তে উন্নীত করা এবং এর পরিবর্তে অর্থনৈতিক ও সামাজিক উন্নতি সাধন করে জাতীয় এবং আন্তর্জাতিক পর্যায়ে উন্নীত করানো।

Bangladesh Army University of Engineering & Technology – ( BAUET) তে পড়তে কত খরচ হয়?

1. EEE———————- 7, 84 ,000 Taka

2. CSE——————— 7,84,000 Taka

3. Civil =——————-7,84,000 Taka

4. Mechanical ————— 7,84,000 Taka

5. ICE————————7,84,000 Taka

6.BBA———————— 4,50, 000 Taka

7. LLB———————- 3, 50, 000 Taka

8.English——————– 3, 50, 000 Taka

* Number of Seats in Each Intake:

CIVIL Engineering ————-50

Computer Science and Engineering —-50

Electrical and Electronic Engineering ——50

Information and Communication Engineering —-50

Mechanical Engineering ——-50

Bachelor of Business Administration ——60

Law and Justice —————50

English ———————-50

Leave a Comment

error: Content is protected !!